গত শনিবার (১৭ এপ্রিল) ছিল শ্রীলঙ্কার কিংবদন্তি স্পিনার মুত্তিয়া মুরালিধরনের জন্মদিন। পৃথিবীর বুকে ৪৯ বছর পূরণ করেছেন তিনি। কিন্তু পঞ্চাশে পা দেয়ার ঠিক পরদিনই হৃদযন্ত্রের সমস্যায় হাসপাতালের বিছানায় যেতে হলো তাকে।

বর্তমানে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের দল সানরাইজার্স হায়দরাবাদের সঙ্গে কাজ করছেন মুরালি। রোববার সকালে হুট করেই অস্বস্তি শুরু হয় তার। তাই সময় নষ্ট না করে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। তবে সবশেষ খবর হলো, এখন শংকামুক্ত আছেন মুরালি।

সানরাইজার্স হায়দরাবাদের কর্মকর্তারা জানাচ্ছেন, নিজের মধ্যে অস্বস্তি লাগায় চেন্নাইয়ের অ্যাপোলো হাসপাতালে চেক-আপ ও ডাক্তারদের পরামর্শ নিতে যান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সর্বোচ্চ শিকারি এই বোলার। সেই মোতাবেক কাজ করতে হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাকে।

তবে শিগগিরই হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র পেয়ে হায়দরাবাদের ডাগআউটে ফিরবেন মুরালি, এমনটাই আশা করছেন দলটির কর্মকর্তারা। হায়দরাবাদের প্রধান নির্বাহী শানমুগানাথন ক্রিকবাজকে বলেছেন, ‘আইপিএলে আসার আগেই হার্টে ব্লক থাকার ব্যাপারে চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলেছিলেন তিনি।’

হায়দরাবাদ প্রধান নির্বাহী আরও যোগ করেন, ‘তখন প্রাথমিকভাবে মুরালিকে বলা হয়েছিল, হৃদযন্ত্রে স্টেন্ট বসানোর কোনো প্রয়োজন নেই। তবে অ্যাপোলোতে এনজিওপ্লাস্টি করতে বলা হয় তাকে। সময় নষ্ট না করে দ্রুতই এটি করানো হয়েছে। তিনি এখন ভালো আছে। শিগগিরই মাঠে ফিরবেন।’