করোনাভাইরাস সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউয়ে বিপর্যস্ত ভারত। বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) দেশটিতে ২ লাখ ৭৩৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে; যা এখন পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ শনাক্তের নতুন রেকর্ড।

এখন পর্যন্ত দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ৪০ লাখ ৭৪ হাজার ৫৬৪ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৩৮ জনের। এ নিয়ে দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মোট ১ লাখ ৭৩ হাজার ১২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে।

করোনা সংক্রমণের দিক থেকে ভারত এখন বিশ্বে দ্বিতীয়।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, করোনায় ভারতের সবচেয়ে বিপর্যস্ত রাজ্য মহারাষ্ট্র। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যটিতে নতুন করে সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে ৫৮ হাজার ৯৫২ জনের শরীরে। এ সময়ে মৃত্যু হয়েছে ২৭৮ জনের। এমন পরিস্থিতিতে বুধবার থেকে ১৫ দিনের জন্য কঠোর লকডাউনের ঘোষণা দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধভ ঠাকরে।

সংক্রমণ বিবেচনায় মহারাষ্ট্রের পরেই রয়েছে কেরালা, কর্ণাটক, তামিলনাড়ু এবং অন্ধ্রপ্রদেশ।

এদিন দিল্লিতেও সর্বোচ্চ ১৭ হাজার ২৮২ জন শনাক্ত এবং ১০৪ জনের মৃত্যু হয়েছে।

সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় টিকাদান কর্মসূচি আরও জোরদারের কথা ভাবছে ভারত সরকার। প্রয়োজনে রাশিয়ার উদ্ভাবিত স্পুটনিক টিকাও আনার পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।

বুধবার (১৪ এপ্রিল) পর্যন্ত ভারতে ১১ কোটি ৪৪ লাখ ডোজ টিকা দেয়া হয়েছে।