ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের জারি করা নতুন ডিজিটাল নিয়মের বিরুদ্ধে দিল্লি হাইকোর্টে মামলা দায়ের করেছে হোয়াটসঅ্যাপ কর্তৃপক্ষ। তাদের দাবি, নতুন এই নিয়মের আওতায় পড়লে গ্রাহকদের গোপনীয়তার সুরক্ষা ভেঙে ফেলতে হবে। এতেই আপত্তি জানাচ্ছে হোয়াটসঅ্যাপ।

সরকারের জারি করা নতুন নিউম কার্যকর হচ্ছে বুধবার থেকে। এ ব্যাপারে নেটমাধ্যমগুলোকে তিন মাসের সময় দিয়েছিল কেন্দ্র। মঙ্গলবার ছিল তার শেষ দিন। ওই দিনই গ্রাহক-সুরক্ষার প্রসঙ্গ তুলে দিল্লি হাইকোর্টে মামলা দায়ের করেছে হোয়াটসঅ্যাপ। যদিও ফেসবুক মঙ্গলবারই জানিয়ে দিয়েছিল, সরকারের নিয়ম অনুসরণ করার যাবতীয় প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছে তারা। তবে ফেসবুকের মালিকানাধীন হোয়াটসঅ্যাপ নতুন আইনের বিরোধিতা করে আইনি পথে হাঁটল।

হোয়াটসঅ্যাপের পক্ষে থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘নতুন এই নিয়মে গ্রাহকদের গোপনীয়তার সুরক্ষা ভঙ্গ হবে’।

ভারতে হোয়াটসঅ্যাপ গ্রাহক ৪০ কোটি। কীভাবে গ্রাহকদের গোপনীয়তা রক্ষা করা যায় তা নিয়ে বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে তারা কথা বলছে বলে জানিয়েছে হোয়াটসঅ্যাপ। একই সঙ্গে ভারত সরকারের সঙ্গেও এ বিষয়ে আলোচনা চালানো হচ্ছে বলে বিবৃতিতে বলা হয়েছে।